পাঁচবিবিতে ইজিবাইক ছিনতাই চক্রের চার সদস্য গ্রেফতার ও ইজিবাইক উদ্ধার

প্রকাশিত: ৩০-০৮-২০২১, সময়: ১৫:৪৯ |
Share This

জয়পুরহাট প্রতিনিধিঃ জয়পুরহাট পাঁচবিবি উপজেলাস্থ কুসুম্বা ইউনিয়নের ছালাখুর নামক গ্রামের রাস্তার পাশের ধানক্ষেত থেকে এক অজ্ঞাতনামা যুবকের মরদেহ উদ্ধার করে পাঁচবিবি থানা পুলিশ। পরবর্তীতে তথ্য প্রযুক্তির সহায়তায় অজ্ঞাতনামা যুবকের পরিচয় সনাক্ত ও নিশ্চিত করা হয়। এই সংক্রান্তে পাঁচবিবি থানায় মামলা নং-৫৬ তারিখ-২৭-০৮-২০২১ খ্রি. ধারা-৩০২/৩৭৯/৩৪ পেনাল কোড রুজু করা হয়।পুলিশ সুপার জয়পুরহাট জনাব মাছুম আহাম্মদ ভূঞা,দিক নির্দেশনায় জনাব ইশতিয়াক আলম, সিনিয়র সহকারী পুলিশ সুপার(পাঁচবিবি সার্কেল), এর নেতৃত্বে জনাব মোঃ শাহেদ আল মামুন, ওসি ডিবি এবং জনাব পলাশ চন্দ্র দেব, অফিসার ইনচার্জ, পাঁচবিবি থানাসহ দুইটি আভিযানিক টিম অপরাধীদের সনাক্তের জন্য ব্যাপক তৎপরতা শুরু করে। পাঁচবিবি থানায় মামলা রুজু হওয়ার ১২ ঘন্টার মধ্যে নিবিড় তদন্ত ও তথ্য প্রযুক্তি বিশ্লেষণ করে মামলার গুরুত্বপূর্ণ তথ্য উদঘাটন করা হয়। উদঘাটিত তথ্যের ভিত্তিতে ভিকটিম মনারুলের ছিনতাইকৃত লাল রংয়ের ইজিবাইকটি উদ্ধার পূর্বক আসামী-মোঃ দিলজার হোসেন মুন্সি (৪২) পিতা- নুর মোহাম্মদ, মাতা-মোছাঃ জোসনা বেগম, সাং-লাটপাড়া মোঃ জুয়েল হোসেন (৩৫) পিতা-মোঃ আহারুল ইসলাম, মাতা-মোছাঃ জোসনা বেগম, সাং-নাকুরগাছী, মোঃ আল আমিন রাজু (২৭) পিতা-মোঃ আঃ করিম শেখ, মাতা-মোছাঃ আঞ্জুয়ারা বেগম, সাং-গনাই মাগুড়া মোঃ আব্দুল হাই (৪০) পিতা-মৃত জাবেদ আলী, মাতা-মোছাঃ লতিফা বেগম, সাং-লাটপাড়া, সর্ব থানা-পাঁচবিবি, জেলা-জয়পুরহাটদেরকে গ্রেফতার করে বিজ্ঞ আদালতে প্রেরণ করা হয়েছে। গ্রেফতারকৃতদের নিবিড়ভাবে জিজ্ঞাসাবাদে জানা যায়, ঘটনার দিন ২৬-০৮-২০২১ তারিখ বিকেল থেকে মুষলধারে বৃষ্টি হওয়ায় রাস্তায় মানুষ চলাচল কম ছিল। তারা ভিকটিম মৃত মোঃ মনারুল ইসলাম (২২), পিতা- মোঃ বাবু মিয়া, সাং সিংড়া(রানীগঞ্জ) থানা-ঘোড়াঘাট, জেলা দিনাজপুরকে বিকাল ০৪.৩০ ঘটিকায় দিনাজপুরের ওসমানপুর হতে হাকিমপুর যাবার জন্য ভাড়া করে। ইতিমধ্যে সন্ধ্যা ঘনিয়ে আসায় হাকিমপুর যাবার পথে তারা ইজিবাইকটি ছিনতাই করার উদ্দেশ্যে পানীয় এর সাথে নেশা জাতীয় দ্রব্য মিশিয়ে তাকে পান করায়। কিছুক্ষণ পরে ভিকটিম মনারুল অচেতন হয়ে পরলে দিলজার হোসেন মুন্সি ইজিবাইকটি চালিয়ে পাঁচবিবি থানার ছালাখুর গ্রামের দিকে রওনা হয়। রাত আনুমানিক ০৯.০০ ঘটিকার দিকে তারা বেড়াখাই হতে শালাইপুর গামী রাস্তার ছালাখুর গ্রামের সন্নিকটে ব্রীজের কাছে পৌঁছালে ভিকটিম মনারুলকে শ্বাসরোধ করে হত্যা করে পাশের ধানক্ষেতের পানিতে লাশ নিক্ষেপ করে ইজিবাইকটি নিয়ে চলে যায়। গ্রেফতারকৃতদের অপরাধ রেকর্ড পর্যালোচনায় জানা যায়, তারা জয়পুরহাট জেলার পাঁচবিবি ও ক্ষেতলাল, দিনাজপুর জেলার ঘোড়াঘাট ও হাকিমপুর এবং গাইবান্ধা জেলার পলাশবাড়ি ও গোবিন্দগঞ্জ এলাকার ৭/৮ জনের একটি সংঘবদ্ধ ছিনতাই চক্র। তারা নেশা জাতীয় দ্রব্য পান করিয়ে অচেতন করে শ্বাসরোধ পূর্বক হত্যা করে সিএনজি ও ইজিবাইক ছিনতাই করে থাকে। তাদের বিরুদ্ধে উক্ত জেলার বিভিন্ন থানায় একাধিক মামলা রয়েছে। তাদের বিরুদ্ধে যথাযথ আইনগত ব্যবস্থা গ্রহণ করা হয়েছে এবং চক্রের অন্যান্য সদস্যদের সনাক্ত ও গ্রেফতারের প্রক্রিয়া চলমান রয়েছে।

ফেসবুকে আমরা

সর্বশেষ সংবাদ

উপরে