মোঃ রোকনুজ্জামান টিপু,তালা(সাতক্ষীরা)প্রতিনিধি : সাতক্ষীরা-খুলনা মহাসড়কের  চুকনগরে মোটরসাইকেল ও ট্রাকের মুখোমুখি সংঘর্ষে মোটরসাইকেল আরোহী রাজন (২০) নামের এক কলেজ ছাত্র নিহত হয়েছেন। এ সময় তার সাথে থাকা আরোহী বন্ধু মেহেদী হাসান (২০) গুরতর আহত হন। গুরতর আহত মেহেদী সাতক্ষীরা সদর হাসপাতালে চিকিৎসাধীন রয়েছে।
নিহত রাজন ইসলাম সাতক্ষীরা শহরের ৫নং ওয়ার্ডের পারকুখরালী মেঝমিয়ার মোড় এলাকার সিরাজুল ইসলামের ছেলে ও কলেজ ছাত্র। আহত মেহেদী হাসান সাতক্ষীরা শহরের কামালনগর এলাকার মিজানুর রহমানের ছেলে ও সাতক্ষীরা সরকারি কলেজর ছাত্র । মেহেদী এ বছরই উচ্চ মাধ্যমিকে পাস করে বিশ^বিদ্যালয় ভর্তির কোচিং করছিলেন।
মঙ্গলবার (১৫ মার্চ) সকালে খুলনা-সাতক্ষীরা মহাসড়কের চাকুন্দিয়া মাদ্রাসা সংলগ্ন এলাকায় এ দুর্ঘটনাটি ঘটে।
পুলিশ ও নিহতদের পারিবারিক সূত্রে জানা গেছে, ঢাকায় যাওয়ার উদ্দেশে সাতক্ষীরা থেকে মোটরসাইকেলযোগে রাজন ও তার বন্ধু মেহেদী হাসান রওয়না হয়।পথিমধ্যে খুলনা-সাতক্ষীরা মহাসড়কের চাকুন্দিয়া মাদ্রাসা সংলগ্ন এলাকায় পৌছালে বিপরীত দিক থেকে আসা একটি ট্রাকের সাথে মুখোমুখি সংঘর্ষ হয়। এতে ঘটনাস্থলেই মারা যায় রাজন আর গুরুতর আহতহন মেহেদি হাসান। গুরুতর আহত মেহেদীকে উদ্ধার করে সাতক্ষীরা হাসপাতালে ভর্তি করেছে এলাকাবাসী।
প্রত্যক্ষদর্শীর বরাত দিয়ে খর্নিয়া হাইওয়ে পুলিশের ভার প্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মেহেদী হাসান জানান, রাজন ও মেহেদী মোটর সাইকেলে ঢাকায় যা্িচ্ছলেন। পথিমধ্য খুলনা-সাতক্ষীরা মহাসড়কের চুকনগর চাকুন্দিয়া মাদ্রাসা সংলগ্ন এলাকায় পৌছালে বিপরীত দিক থেকে আসা একটি ট্রাকের সাথে মুখোমুখি সংঘর্ষ হয় । এতে ঘটনাস্থলে মোটর সাইকেল চালক রাজন মারা যান। গুরুতর আহত হন মেহেদি,তাকে স্থানীয়রা উদ্ধার করে সাতক্ষীরা সদর হাসপাতালে ভর্তি করেন।নিহত রাজনের মরদেহ ডুমুরিয়া উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে রাখা হয়েছে। ক্ষতিগ্রস্থ মোটরসাইকেলটি থানা হেফাজতে রয়েছে। ঘাটতক ট্রাকটি পালিয়েগেছে বলেও জানান তিনি।