বিশেষ প্রতিনিধি : পিরোজপুরের মঠবাড়িয়ায় করোনাকালীন লকডাউনে “খ্রিস্টান মিশন হাকিম ডেভলপমেন্ট বেসরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়” নামে একটি শিক্ষা প্রতিষ্ঠান দখল করে নেয়ার অভিযোগ পাওয়া গেছে একটি চক্রের বিরুদ্ধে। এ ঘটনায় ওই বিদ্যালয়ের প্রতিষ্ঠাতা ও ম্যানেজিং কমিটির সভাপতি গোপাল চন্দ্র মিস্ত্রী বিদ্যালয় দখলমুক্ত ও মালামাল উদ্ধার করার জন্য রোববার মঠবাড়িয়া থানায় লিখিত অভিযোগ দেন। গোপাল মিস্ত্রী উপজেলার কুমিরমারা গ্রামের মৃত. হরিচরণ মিস্ত্রী ছেলে।
অভিযোগ সূত্রে জানা যায়, কোভিট- ১৯ এর কারণে সারাদেশে শিক্ষা প্রতিষ্ঠান বন্ধ ঘোষণার পাশাপাশি লকডাউন দেন সরকার। সম্প্রতি সরকার শিক্ষা প্রতিষ্ঠান খুলে দেয়ার সিদ্ধান্ত নিলে গত ১৫ ফেব্রæয়ারী ওই কুমিরমারা গ্রামের মৃত. মেসের আলী হাওলাদারের ছেলে ফুলমিয়া হাওলাদার ও তার ছেলে আলমগীর হোসেন এমাদুলসহ অজ্ঞাত দুর্বৃত্তরা রাতের আধাঁরে বিদ্যালয়টির মূল গেটের তালা ভেঙে টেবিল-চেয়ারসহ দাপ্তরিক কাগজপত্র ও বিভিন্ন মালামাল চুরি করে নিয়ে নিজস্ব তালা মেরে স্কুল ভবনটি দখলে নেয়। যে কারণে শিক্ষার্থীরা স্কুলে আসতে পারছেনা।
অভিযুক্ত ফুলমিয়া হাওলাদারের মুঠোফোনে (০১৭২৪৫৪১৪৯১) একাধিক বার কল করলেও তিনি রিসিভ করেন নি।
মঠবাড়িয়া থানার ওসি মুহা. নূরুল ইসলাম বাদল অভিযোগের সত্যতা নিশ্চিত করে বলেন, তদন্ত করে আইনগত ব্যবস্থা নেয়া হবে।
উপজেলা শিক্ষা কর্মকর্তা অচ্যুতানন্দ দাশ বলেন. মিশনারী স্কুল আমাদের আওতায় নয়। তাই আমার করার কিছুই নাই।