জয়পুরহাট প্রতিনিধি : জয়পুরহাট মহিলা আওয়ামীলীগের জেলা কমিটির সাংগঠনিক সম্পাদক নির্বাচিত হয়েছেন সাবেক সেচ্ছাসেবকলীগ নেত্রী ও গণমাধ্যমকর্মী আয়শা সিদ্দিকা আশা। বৃহস্পতিবার মহিলা আওয়ামীলীগের কেন্দ্রীয় কমিটির সভাপতি আলহাজ্ব সাফিয়া খাতুন ও সাধারণ সম্পাদক মাহমুদা বেগম সাক্ষরিত জেলা কমিটি অনুমোদনের কপি গ্রহন করেছেন জয়পুরহাট জেলা মহিলা আওয়ামীলীগের সভাপতি শাম্মিম আজিজ সাজ ও সাধারণ সম্পাদক সাবিনা চৌধুরী। মহিলা আওয়ামীলীগের জয়পুরহাট জেলা শাখার সর্বশেষ সম্বেলন ২০২১ সালের ৪ অক্টোবর জেলা শিল্পকলা একাডেমিতে অনুষ্ঠিত হয়। সেখানে কেন্দ্রীয় নেতারা সম্মতির ভিত্তিতে জেলা কমিটির সভাপতি শাম্মিম আজিজ সাজ ও সাধারণ সম্পাদক সাবিনা চৌধুরীর নাম ঘোষণা করেন এবং তাদেরকে পূর্নাঙ্গ কমিটি করার নির্দেশ দেন। এরই ধারাবাহিকতায় জেলার সভাপতি ও সাধারণ সম্পাদকের সমন্নয়ে তালিকা কেন্দ্রে পাঠান। কেন্দ্র কমিটি ৯২ সদস্য জেলা কমিটির অনুমোদন দিয়েছেন। সদ্য অনুমোদিত জেলা কমিটির সাংগঠনিক সম্পাদক হিসেবে নির্বাচিত হয়েছেন আয়শা সিদ্দিকা আশা।তিনি জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয় থেকে অনার্স, কারমাইকেল কলেজ রংপুর থেকে মাস্টার্স ডিগ্রি সম্মন্ন করেছেন। তিনি ছোট বেলা থেকেই বঙ্গবন্ধুর আর্দশ ধারন করে,ছাত্র জীবন থেকে ছাত্রলীগ কর্মী হিসেবে কাজ করছেন। ১৮ নভেম্বর ২০১১ সালে বাংলাদেশ আওয়ামীলীগের প্রাথমিক সদস্য পদ লাভ করেন তিনি। তারপর নিজ এলাকা জয়পুরহাট পৌরসভার ৫ নং ওয়ার্ড আওয়ামীলীগের প্রচার ও প্রকাশনা সম্পাদকের দায়িত্ব পালন করেন। এরপরে আওয়ামী সেচ্ছাসেবকলীগের জয়পুরহাট জেলা কমিটির মহিলা বিষয়ক সম্পাদকের দায়িত্ব করেন।রাজনিতির পাশাপাশি তিনি জাতীয় ইংরেজি দৈনিক ” দ্য ভয়েজ অফ এশিয়া ও দৈনিক এই বাংলা পত্রিকার জয়পুরহাট জেলা প্রতিনিধি হিসেবে কর্মরত আছেন। তার স্বামী রেজাউল করিম রেজা জয়পুরহাট পৌর আওয়ামীলীগের ৫ নম্বর ওয়ার্ড কমিটির সাধারণ সম্পাদক। সে গত এক যুগ থেকে দায়িত্ব পালন করছেন। দায়িত্ব পালন কালে ২০১৩ সালে দেশব্যাপী পেট্রোল বোমা ও নাশকতা হামলার ধারাবাহিকতায় জয়পুরহাট জেলা বি এন পি অফিস পোড়ানো মামলার আসামি হয়েছেন। অপরদিকে জয়পুরহাট জেলা আওয়ামীলীগ অফিস পোড়ানো মামলার বাদীর স্বাক্ষী হয়েছেন।সেও ব্যবসা ও রাজনৈতির পাশাপাশি দেশের গুরুত্বপূর্ণ প্রিন্ট ও ইলেকট্রনিক মিডিয়ায় কর্মরত আছেন। সে জয়পুরহাটের একটি সাংবাদিক সংগঠনের নেতৃত্ব দিচ্ছেন। আয়শা সিদ্দিকার ব্যক্তিগত জীবনে একটি ৪ বছরের পুত্র সন্তান রয়েছে। এ ব্যাপারে আয়শা সিদ্দিকা আশা বলেন, নারীর স্বনির্ভরতা ও ক্ষমতায়নে আমাদের সরকারের মত কোন সরকার কাজ করেনি। তাই সরকারের কাজকে আরো এগিয়ে নিতে দলের সাথে আমি ছিলাম, আছি ও সবসময় থাকবো । নতুন কমিটিতে আমাকে স্থান দিয়ে, কাজ করার সুযোগ করে দেওয়ার জন্য,মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা, কেন্দ্রীয় ও জেলার নেতৃবৃন্দদের কাছে কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করছি।