ডেস্ক রিপোর্ট : বাংলাদেশ, ভুটান, ভারত ও নেপাল (বিবিআইএন) কাঠামো অনুযায়ী বাংলাদেশ ও ভুটানকে জলবিদ্যুৎ সরবরাহে চুক্তি করেছে ভারত ও নেপাল। গত শনিবার নয়াদিল্লিতে ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি এবং ভারত সফররত নেপালের প্রধানমন্ত্রী শের বাহাদুর দিউবার উপস্থিতিতে দুই দেশের মধ্যে বিদ্যুৎ উৎপাদন ও সরবরাহ নিয়ে এই যৌথ দলিল প্রকাশ করা হয়। দলিল অনুসারে, নেপালে উত্পন্ন জলবিদ্যুত্ প্রতিবেশী দেশগুলোতে সরবরাহ করা হবে। সার্ক দেশগুলোর মধ্যে ভারত-ভুটান-নেপাল ও বাংলাদেশ নিয়ে গঠিত হয়েছে উপ-আঞ্চলিক বিবিআইএন কাঠামো। এই কাঠামোর আওতায় চার দেশের মধ্যে বিদ্যুৎ, পরিকাঠামো ও যোগাযোগব্যবস্থা গড়ে তোলা হবে। যৌথ দলিল অনুসারে উভয় দেশ একমত হয়েছে, বিদ্যুৎক্ষেত্রে ব্যাপক প্রকল্প ও সরবরাহব্যবস্থা গড়ে তোলা হবে। উভয় দেশ নেপালে যৌথভাবে জলবিদ্যুৎ প্রকল্প নির্মাণ করবে এবং সীমান্তপারের অন্য দেশের সঞ্চালন লাইন তৈরি করবে। দলিলে বলা হয়েছে, বিদ্যুৎ বিক্রির জন্য ভারত ও নেপালকে অভিন্ন সুবিধা দেওয়া হবে এবং যে দেশে বিদ্যুত্ সরবরাহ করা হবে সেখানকার স্থানীয় আইন অনুযায়ী বিদ্যুৎ বিক্রির ব্যবস্থা করা হবে। এই ব্যবস্থা গড়ে তোলা হবে বিবিআইএন প্রাতিষ্ঠানিক কাঠামোর সনদ অনুসারে। বৈঠকে ভারতের প্রধানমন্ত্রী মোদি নেপালে বিদ্যুত্ উদ্বৃত্ত হওয়ার প্রশংসা করেন। ঘোষিত যৌথ দলিল অনুসারে নেপালের পানিও যৌথভাবে ব্যবহার করা হবে।