কে হতে পারে রংপুরের, কাউনিয়ার ২নং হারাগাছ ইউনিয়নের চেয়ারম্যান

প্রকাশিত: ১৪-০৯-২০২১, সময়: ০৫:২০ |
Share This

মোঃ শাহাদত হোসেন বকুল – রংপুর প্রতিনিধি : বাংলাদেশ নির্বাচন কমিশন ইতিমধ‍্যে ঘোষণা করেছেন যে ২৩ শে সেপ্টেম্বর ২০২১ ইং সকল প্রকার বিধিবিধান মেনেই ইউ পি নির্বাচনের তফশীলের ঘোষনা বিষয়ে আলোচনা করা হবে। সেই সুত্র ধরেই এখন সারা দেশে চলছে নির্বাচনের ফুরফুরে প্রচার প্রচারণা। এলাকার বিভিন্ন বাজার, হাট, মসজিদ, মন্দির থেকে শুরু করে গ্রামে গ্রামে চলছে নির্বাচনের আলোচনা সমলোচনার ঝড়। বিভিন্ন প্রার্থী বিভিন্ন ভাবে তাদের নির্বাচনের অঙ্গীকার করছে বলে জনগণের মুখে সরব এখন প্রতিটি বাজারের টার্নিং পয়েন্টগুলো। জমে উঠেছে চা দোকান থেকে শুরু করে পানের দোকানেও ঐ একই আলোচনা। এক জনজরিপের মাধ‍্যেমে আমাদের প্রতিনিধি জানিয়েছেন, এবারে এই ইউনিয়নে নৌকার মাঝি হতে চায় এরকম কয়েকজনের নাম শোনা যাচ্ছে, গতবার ডাঃ মোঃ মাহফুজার বসুনিয়া হেরেছিল নৌকা প্রতিক নিয়ে, এবার তিনি জোড়ালো ভাবে প্রচার প্রচারনায় নৌকার মাঝি হওয়ার জন‍্য, তিনি ইতিমধ‍্যেই বিভিন্ন এলাকায় জনগণের মাঝে দোয়া ও সমর্থন চেয়ে উঠান বৈঠক সহ নির্বাচনে গন‍্যমান‍্য ব‍্যক্তিবর্গের নিকট যাচ্ছেন, আবার অনেকেই জানিয়েছেন যে এই ইউনিয়নের বাংলাদেশ আওয়ামীলীগ এর সাধারণ সম্পাদক মোঃ ইয়াছিন আলী বাবুর কথা যে গতবার দলের সিদ্ধান্তের কারনেই তিনি প্রার্থিতা পায়নি, এবারও তিনি বলেন দল যে সিদ্ধান্ত দিবে আমি সেই সিদ্ধান্তের বাইরে যাবনা, দল যদি আমাকে নমিনেশন দেয় আমি নৌকাকে এই ইউনিয়নে বিপুল ভোটে জয় এনে দিতে পারব ইনশাআল্লাহ। আবার কারো কারো মুখে শোনা যাচ্ছে বাংলাদেশ আওয়ামীলীগ এর কাউনিয়া উপজেলা শাখার সদস‍্য মোঃ আলতাব হোসেন কে চেয়ারম্যান প্রার্থী হতে শোনা যাচ্ছে। তিনিও জনসমর্থনের জন‍্য বিভিন্ন প্রচার প্রচারনা করে আসছেন, তিনি এক স্বাক্ষাতকারে আমাদের প্রতিনিধি কে জানিয়েছেন দল যদি আমাকে নমিনেশন দেন তাহলে আমি বিপুল ভোটে নৌকা মার্কাকে জিতিয়ে দেওয়ার চেষ্টা রাখবো ইনশাআল্লাহ। । এক কথায় সবার একটিই কথা দলের সিদ্ধান্তের বাইরে কেউ যাবে না। মাননীয় প্রধানমন্ত্রী জননেত্রী শেখ হাসিনা যাকেই এই ইউনিয়নে নৌকার মাঝি ঘোষনা করবেন আমরা সকলেই একত্রিত হয়ে তাকেই জিতিয়ে ইউনিয়নের মসনদে বসাবো ইনশাআল্লাহ। আবার যেহেতু বি এন পি তার দলীয় প্রতীকে নির্বাচনে অংশ গ্রহণ করবে না সেই দিকে বিবেচনা করে বিএনপির দলীয় নেতা কর্মী ইতিমধ্যেই মোঃ মোজাহিদুর রহমান বসুনিয়াকে স্বতন্ত্র প্রার্থী হিসেবে সমর্থন করেছেন এবং তার পক্ষে কাজ করার জন‍্য দলীয় সকল নেতাকর্মীদের নির্দেশ দিয়েছেন। তিনি আরও বলেন আমি গত নির্বাচনে খুব কম ভোটের ব‍্যবধানে পরাজিত হয়েছিলাম কিন্তু এবারে আমি আমার ইউনিয়নের সকল ভোটারদের সমর্থন আশা করছি, সেই সাথে আমি আমার দলীয় নেতাকর্মীদের একান্তভাবে সহযোগিতা ও সমর্থন আশা করছি। আমি সকলের প্রিয় মোজাহিদুর হতে চাই আমি উক্ত ইউনিয়নের সকল ভোটারদের সমর্থনে চেয়ারম্যান হয়ে সেবা করতে চাই এবং আমি আশা করি আমি চেয়ারম্যান হতে পারলে এই ইউনিয়ন কে একটি ডিজিটাল ও মডেল ইউনিয়ন হিসেবে গড়ে তুলতে চেষ্টা করব ইনশাআল্লাহ। অন‍্যদিকে হাত পাকা মার্কা নিয়ে প্রচার প্রচারনা চালিয়ে যাচ্ছেন একই ইউনিয়নের বাংলাদেশ ইসলামী ঐক‍্যজোটের প্রার্থী মাওলানা আনোয়ারুল ইসলাম। সব দিক বিশ্লষন করলে দেখা যায় এবারে সবাই সবার অবস্থান কঠোরভাবে পালন করে ২ নং হারাগাছ ইউনিয়ের চেয়ারম্যান হতে চান।

উপরে