এবার ৬ মুসলিম প্রধান দেশের ওপর ট্রাম্পের নিষেধাজ্ঞা

প্রকাশিত: ০৭-০৩-২০১৭, সময়: ০৯:৩১ |
Share This

আন্তর্জাতিক ডেস্ক : ছয়টি মুসলিমপ্রধান দেশের নাগরিকদের ৯০ দিনের মধ্যে যুক্তরাষ্ট্রে নিষিদ্ধ করে নতুন এক সংশোধিত নির্বাহী আদেশ জারি করেছেন মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প। সোমবার জারি করা এ আদেশে ইরাককে বাদ দেয়া হয়েছে।

নতুন আদেশে বলা হয়েছে, যেসব লোকের বৈধ ভিসা আছে তারা যুক্তরাষ্ট্রে প্রবেশ করতে পারবেন। তবে ছয় সপ্তাহ আগে জারি করা আদেশে ইরাক ছাড়া অন্য দেশগুলোর ওপর যে নিষেধাজ্ঞা ছিল তা বহাল থাকছে। দেশগুলো হল- ইরান, লিবিয়া, সিরিয়া, সোমালিয়া, সুদান ও ইয়েমেন।

এছাড়া শরণার্থীদের ১২০ দিনের মধ্যে প্রবেশে নিষেধাজ্ঞা দেয়া হয়েছে। ১৬ মার্চ থেকে নতুন আদেশ কার্যকর হবে।

মার্কিন পররাষ্ট্রমন্ত্রী রেক্স টিলারসন বলেছেন, এ আদেশের ফলে উগ্র ইসলামপন্থীদের বিপদমুক্ত হবে আমেরিকা।

মার্কিন অ্যাটর্নি জেনারেল জেফ সেশন্স বলেছেন, এফবিআই যুক্তরাষ্ট্রে আশ্রয় নেয়া ৩ শতাধিক শরণার্থীর সন্ত্রাসবাদের সংশ্লিষ্টতা খতিয়ে দেখছে। তিনি বলেন, ‘বিশ্বের অন্য দেশের মতোই যুক্তরাষ্ট্রেরও অধিকার রয়েছে যে কারা আমাদের দেশে প্রবেশ করে তা নিয়ন্ত্রণ করা এবং যারা আমাদের ক্ষতি করতে চায় তাদের ঢুকতে না দেয়া।’

নতুন আদেশে বলা হয়েছে, যুক্তরাষ্ট্রের পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয় ইতিমধ্যে যেসব শরণার্থীকে অনুমতি দিয়েছে তাদের প্রবেশ করার সুযোগ দেয়া হবে। তবে বছরে এ সংখ্যা ৫০ হাজারের বেশি হবে না। যুক্তরাষ্ট্রের গ্রিনকার্ডধারীদের জন্য ভ্রমণ নিষেধাজ্ঞা প্রযোজ্য হবে না।

এর আগে ২৭ জানুয়ারি এক নির্বাহী আদেশে সাত মুসলিম-প্রধান দেশের নাগরিকদের যুক্তরাষ্ট্র সফরে নিষেধাজ্ঞা আরোপ করেন ডোনাল্ড ট্রাম্প। পরে সিয়াটলের একজন বিচারক ট্রাম্পের ওই নিষেধাজ্ঞা স্থগিতের আদেশ দেন। ট্রাম্প প্রশাসন ওই আদেশের বিরুদ্ধে আপিল করলেও সান-ফ্রান্সিসকোভিত্তিক তিন বিচারকের প্যানেল তা খারিজ করেন।

১৬ ফেব্রুয়ারি বৃহস্পতিবার হোয়াইট হাউসে অনুষ্ঠিত এক সংবাদ সম্মেলনে ট্রাম্প জানিয়েছিলেন, নতুন করে জারি করতে যাওয়া নির্বাহী আদেশটিতে আগের নির্বাহী আদেশের ব্যাপারে আদালতের তোলা প্রশ্নগুলোর মীমাংসা করা হবে। নতুন নিষেধাজ্ঞার কথা কয়েক সপ্তাহ ধরেই শোনা যাচ্ছিল। তবে বুধবার কংগ্রেসে দেয়া ভাষণের পর ওই আলোচনায় কিছুটা ভাটা পড়ে। সূত্র: বিবিসি

Leave a comment

ফেসবুকে আমরা

সর্বশেষ সংবাদ

উপরে