খালেদার নাইকো মামলা হাইকোর্টে স্থগিত

প্রকাশিত: ০৭-০৩-২০১৭, সময়: ০৭:৪৭ |
Share This

বাংলাদেশ মেইল ডেস্ক : বিএনপি চেয়ারপারসন বেগম খালেদা জিয়ার নাইকো দুর্নীতি মামলার কার্যক্রম হাইকোর্টে স্থগিত করা হয়েছে। মঙ্গলবার দুপুরে বিচারপতি শেখ আবদুল আওয়ালের নেতৃত্বাধীন ডিভিশন বেঞ্চে তা স্থগিত করা হয়।

এর আগে নাইকো মামলার কার্যক্রম বাতিল ও স্থগিত চেয়ে হাইকোর্টে আবেদন করেন বিএনপির চেয়ারপারসন খালেদা জিয়া। তার পক্ষে ব্যারিস্টার মাহবুবউদ্দিন খোকন মঙ্গলবার এ আবেদন জমা দেন।

শুনানির আগে মাহবুবউদ্দিন খোকন সাংবাদিকদের বলেন, ‘মামলাটি নিম্ন আদালতে বিচারাধীন। আমরা ৫৬১ ধারার আলোকে মামলাটি বাতিল চেয়ে আবেদন করেছি। আজ বিষয়টির ওপর শুনানি হতে পারে।’

কানাডার কোম্পানি নাইকোর সাথে অস্বচ্ছ চুক্তির মাধ্যমে রাষ্ট্রের বিপুল পরিমাণ আর্থিক ক্ষতিসাধন ও দুর্নীতির অভিযোগে খালেদা জিয়াসহ পাঁচজনের বিরুদ্ধে দুর্নীতি দমন কমিশনের (দুদক) সহকারী পরিচালক মুহাম্মদ মাহবুবুল আলম ২০০৭ সালের ৯ ডিসেম্বর তেজগাঁও থানায় নাইকো দুর্নীতি মামলাটি করেন।

২০০৮ সালের ৫ মে মামলায় খালেদা জিয়াসহ ১১জনের বিরুদ্ধে আদালতে অভিযোগপত্র দাখিল করেন দুদকের সহকারী পরিচালক এসএম সাহেদুর রহমান।

অভিযোগপত্রে প্রায় ১৩ হাজার ৭৭৭ কোটি টাকার রাষ্ট্রীয় ক্ষতির অভিযোগ আনা হয়। এ মামলার অন্য আসামিরা হলেন সাবেক আইনমন্ত্রী ব্যারিস্টার মওদুদ আহমদ, সাবেক জ্বালানি প্রতিমন্ত্রী একেএম মোশাররফ হোসেন, সাবেক মুখ্য সচিব কামাল উদ্দিন সিদ্দিকী, জ্বালানি ও খনিজসম্পদ মন্ত্রণালয়ের সাবেক ভারপ্রাপ্ত সচিব খন্দকার শহীদুল ইসলাম, সাবেক সিনিয়র সহকারী সচিব সিএম ইউছুফ হোসাইন, বাপেক্সের সাবেক মহাব্যবস্থাপক মীর ময়নুল হক, সাবেক সচিব মো. শফিউর রহমান, ব্যবসায়ী গিয়াস উদ্দিন আল মামুন, ঢাকা ক্লাবের সাবেক সভাপতি সেলিম ভূঁইয়া ও নাইকোর দক্ষিণ এশিয়াবিষয়ক ভাইস প্রেসিডেন্ট কাশেম শরীফ।

Leave a comment

ফেসবুকে আমরা

সর্বশেষ সংবাদ

উপরে