দৈনিক পত্রদূত ও কালের চিত্রের বিরুদ্ধে মামলায় আশাশুনি সাংবাদিক সমাজের নিন্দা

আশাশুনি (সাতক্ষীরা) সংবাদদাতা: বস্তুনিষ্ঠ স্বাধীন সংবাদ প্রকাশে গাত্রদাহে সাতক্ষীরা থেকে প্রকাশিত দৈনিক পত্রদূত ও দৈনিক কালের চিত্র পত্রিকার সম্পাদকসহ ৬জন সাংবাদিকের নামে ডিজিটাল আইনে মামলা হওয়ায় তীব্র নিন্দা, প্রতিবাদ ও উদ্বেগ প্রকাশ করে বিবৃতি দিয়েছেন আশাশুনি উপজেলা মফঃস্বল সাংবাদিক ফোরামের আহবায়ক এসএম আহসান হাবিব, সদস্য সচ্চিদানন্দদে সদয়, আলী নেওয়াজ, গোলাম মোস্তফা, বাহবুল হাসনাইন, গোপাল কুমার মন্ডল, আকাশ হোসেন, শাহদাৎ হোসেন টিটল, হাবিবুল্লাহ বিলালী, ফাইজুল কবির, মুকুল শিকারি, ডাঃ শাহজান আলম, শেখ বাদশাহসহ উপজেলা মফঃস্বল সাংবাদিক ফোরাম ও আশাশুনি রিপোটার্স ক্লাবের নেতৃবৃন্দ। বিবৃতিতে নেতৃবৃন্দ জানান, অনতিবিলম্বে মিথ্যা মামলা প্রত্যাহার না করা হলে আশাশুনি উপজেলায় কর্মরত সকল সাংবাদিক মহল কঠিন আন্দোলনের কর্মসূচী পালন করবে।

আশাশুনির বড়দলের ছাত্রী-শিক্ষক সম্পর্ক ভিন্নখাতে প্রবাহিত করার অভিযোগ

আশাশুনি (সাতক্ষীরা) সংবাদদাতা: আশাশুনির বড়দলের ছাত্রী-শিক্ষক সম্পর্ক ভিন্নখাতে প্রবাহিত করতে একটি মহল পরিকল্পিতভাবে অনৈতিক কার্যকলাপের অভিযোগ তুলে শিক্ষককে বেকায়দায় ফেলানোর চেষ্টা অব্যহত রেখেছে। সরেজমিনে ঘুরে ও ভিকটিমের সাথী বান্ধবীর সাথে কথা বলে জানাগেছে, বিগত ৪/৫দিন পূর্বে সন্ধ্যায় উপজেলার বড়দল (উত্তর) গ্রামের মাদ্রাসা শিক্ষক আনারুলের বাড়ীতে পার্শ্ববর্তী ৮ম্ শ্রেনী পড়–য়া মেজবাহ মালির কন্যা মনজিলা ও তনজুরুল মালির মেয়ে তমা প্রতিদিনের ন্যায় প্রাইভেট পড়তে যায়। বিগত তিন বছর পূর্ব থেকে ওই শিক্ষকের কাছে কোন দূর্ঘটনা ছাড়াই পড়া শেষে নিয়মিত বকাটে ছেলেদের ভয়ে তাদের অভিভাবকরা বাড়ী নেয়ার জন্য এগিয়ে আনতে যায়। ওই দিন অভিভাবকরা শিক্ষকের বাড়ীতে এগিয়ে আনতে না যাওয়ায় শিক্ষক নিজেই দু’জনকে এক সাথে তাদের বাড়ীতে এগিয়ে দিয়ে আসে। এ ব্যাপারে শিক্ষক আনারুল জানান, স্বাভাবিকভাবে তাদের বাড়ীতে তাদের অভিভাবকদের জিম্মায় দিয়ে আসি। কিন্তু পথে থাকা নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক বেশ কিছু বকাটে ছেলেরা যারা দীর্ঘদিন ধরে আমার কঠোরতার কারনে তাদের গা ঘেসতে পারেনা তারাই তাদের অভিভভাবকদের নিকট মিথ্যা নাটক সাজিয়ে রটনা করার চেষ্টা চালাচ্ছে। তাছাড়া মনজিলার পিতা প্রথম স্ত্রীর মেয়ে বিধায় তাকে বাল্যবিবাহ দেয়ার জন্য আমার সাথে পরামর্শ করে। তখন আমি সরকারে কঠোর নিষেধাজ্ঞার প্রতি সম্মান দেখিয়ে বাঁধা নিষেদ করি। এতে মেজবাহ আমার উপর ক্ষুব্ধ হয়ে থাকে। সেই সুযোগ কাজে লাগিয়ে উদুর পিন্ডি বুদুর ঘাড়ে চাপাতে বকাটে ছেলেদের কথায় রাজি হয়ে আমাকে বেকায়দায় ফেলতে মেয়ে মনজিলাকে ভূল বুঝিয়ে থানা আদালত করার অপচেষ্টা অব্যহত রেখেছে। এদিকে মনজিলার সাথী পার্শ্ববর্তী তনজুরুলের কন্যা তমা জানায়, আমরা দু’বান্ধবী এক সাথেই স্যারের সাথে বাড়ী ফিরি। ততখনে স্যারের সাথে আমাদের কোন আপত্তিকর কথা বা কার্যকলাপ ঘটেনি। কেন মনজিলা স্যারের বিরুদ্ধে অনৈতিক কার্যকলাপের অভিযোগ করছে তা আমার জানা নেই। এ ঘটনায় শিক্ষক আনারুল সহ তার পরিবার সঠিক তদন্ত পূর্বক প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহনের জন্য প্রশাসনের উর্দ্ধতন কর্তৃপক্ষের আশু হস্তক্ষেপ কামনা করেছেন।

আশাশুনির পার্শ্ববর্তী পল্লীতে এক ভ্যান চালক গলায় রশি পেচিয়ে আত্নহত্যা


আশাশুনি (সাতক্ষীরা) সংবাদদাতা: আশাশুনির পার্শ্ববর্তী পল্লীতে এক ভ্যান চালক যুবক গলায় রশি পেচিয়ে আত্নহত্যা করেছে। জানাগেছে, শনিবার সকাল ৯টার দিকে উপজেলার পার্শ্ববর্তী সাইহাটি গ্রামের বাব খাঁর পুত্র ভ্যান চালক মোস্তাকিম (২০) বাড়ীর সকলের অজান্তে বসত ঘরের আড়াই রশি পেচিয়ে ঝুলে পড়ে। তার মা বাড়ী ফিরেই জানলা দিয়ে দেখেই ডাক চিৎকার দিলে পার্শ্ববর্তী লোকজন ছুটে এসে দরজা ভেঙ্গে তাকে উদ্ধার করে আশাশুনি হাসপাতালে নেয়। হাসপাতালে পৌছানো মাত্র কর্তব্যরত ডাক্তার তাকে মৃত্যু ঘোষনা করে। আতœহননকারীর অভিভাবকদের সাথে কথা বলে তার মৃত্যুর সঠিক কারণ জানা যায়নি। এ ব্যাপারে আশাশুনি থানায় একটি অপমৃত্যু মামলা দায়ের হয়েছে।

Comments

comments

সম্পাদক ও প্রকাশক : ডাঃ আওরঙ্গজেব কামাল
সম্পাদক মন্ডলীর সভাপতি : ইজ্ঞি: মোঃ হোসেন ভূইয়া।
বার্তা সম্পাদক : জহিরুল ইসলাম লিটন
যুগ্ন-সম্পাদক : শামীম আহম্মেদ

ঢাকা অফিস : জীবন বীমা টাওয়ার,১০ দিলকুশা বানিজ্যিক (১০ তলা) এলাকা,ঢাকা-১০০০
মোবাইলঃ ০১৭১৬-১৮৪৪১১,০১৯৪৪২৩৮৭৩৮

E-mail:dnanewsbd@gmail.com

© 2011 Allrights reserved to Daily Detectivenews